নীড়পাতা সমকালীন সংবাদ অর্থনীতি উপমহাদেশের প্রখ্যাত অর্থনীতিবিদ অশোক মিত্র কলকাতায় মারা গেছেন

উপমহাদেশের প্রখ্যাত অর্থনীতিবিদ অশোক মিত্র কলকাতায় মারা গেছেন

উপমহাদেশের প্রখ্যাত অর্থনীতিবিদ অশোক মিত্র মারা গেছেন। আজ মঙ্গলবার সকাল সোয়া ৯টায় মধ্য কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে তিনি শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৯০ বছর। বেশ কিছুদিন ধরে তিনি বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন।

আজ দুপুরে তাঁর মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে কলকাতার আলীপুরের বাসভবনে। সেখানে বিকেল ৪টা পর্যন্ত তাঁর মরদেহ সর্বসাধারণের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য রাখা হবে। এরপরে মরদেহ নিয়ে বের হবে একটি শোকমিছিল। এই মিছিল শেষ হবে দক্ষিণ কলকাতার কেওড়াতলা মহাশ্মশানে। সেখানেই তাঁর শেষকৃত্য সম্পন্ন হবে।

১৯৪৭ সালে দেশভাগের পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক পাস করে অশোক মিত্র চলে আসেন কলকাতায়। তিনি কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হতে চাইলেও কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় তাঁকে ভর্তি করেনি। এরপর তিনি চলে যান উত্তর প্রদেশের বেনারস হিন্দু বিশ্ববিদ্যালয়ে। সেখান থেকে তিনি অর্থনীতিতে স্নাতকোত্তর হন। এরপর তিনি নেদারল্যান্ডসের ইনস্টিটিউট অফ সোশ্যাল স্টাডিজে অর্থনীতি নিয়ে শিক্ষকতাও করেন। ১৯৫৩ সালে ইউনিভার্সিটি অফ রটারডাম থেকে পিএইচডি করেন তিনি। ১৯৬০ সালে তিনি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটনের ইকোনমিক ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউটে কাজ করেন।

১৯৭০ সালে অশোক মিত্র ভারত সরকারের প্রধান অর্থনৈতিক উপদেষ্টা হিসেবে যোগ দেন। কাজ করেন ১৯৭২ সাল পর্যন্ত। লক্ষ্ণৌ বিশ্ববিদ্যালয়ে তিনি অধ্যাপক হিসেবে দু্‌ই বছর চাকরিও করেন। ১৯৭৭ সালে পশ্চিমবঙ্গের প্রথম বামফ্রন্ট সরকারের অর্থমন্ত্রী হিসেবে যোগ দেন তিনি। একটানা ১০ বছর দায়িত্ব পালন করলেও মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসুর সঙ্গে তাঁর মতদ্বৈধতা দেখা দিলে তিনি মন্ত্রিত্ব ছেড়ে দেন। ১৯৯০ সালে তিনি ভারতের সংসদের উচ্চকক্ষ রাজ্যসভার সদস্য বা সাংসদ হন। শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সংসদীয় কমিটির চেয়ারম্যানও হন তিনি। তিনি ভারত সরকারের কৃষিপণ্য কমিশনের চেয়ারম্যানের দায়িত্বও পালন করেন।

অর্থনীতিবিদ অশোক মিত্র প্রচুর লিখেছেন। প্রকাশিত হয়েছে তাঁর লেখা অর্থনীতির ওপর নানা গ্রন্থ। তিনি নিয়মিত লিখতেন কলকাতার নামী পত্রপত্রিকায়। পেয়েছিলেন সাহিত্য একাডেমি পুরস্কার। অশোক মিত্র ২০০৩ সালে বিয়ে করেছিলেন গৌরী দেবীকে। ২০০৮ সালের মে মাসে ৭৯ বছর বয়সে তিনি মারা যান।

রিপ্লাই করুন

অনুগ্রহ করে আপনার মন্তব্য লিখুন
অনুগ্রহ করে আপনার নাম লিখুন