নীড়পাতা বাংলাদেশ সিলেট বিয়ানীবাজারে যাত্রা শুরু করলো ছাদ রেস্টুরেন্ট ‘ভোজবাড়ি’

বিয়ানীবাজারে যাত্রা শুরু করলো ছাদ রেস্টুরেন্ট ‘ভোজবাড়ি’

75
0

সম্ভাবনা ডেস্ক:

নান্দনিক পরিবেশে সাধ্যের মধ্যে স্বাদের খাবার’ এ প্রত্যয়ে ভোজন রসিকদের জন্য যাত্রা শুরু করলো বিয়ানীবাজার উপজেলার প্রথম ছাদ রেস্টুরেন্ট ‘ভোজবাড়ি’। বিয়ানীবাজার পৌরশহরের কলেজ রোডস্থ (প্রমথ নাথ দাস রোড) গোলাটিকর হাউজের ২য় তলায় এ ছাদ রেস্টুরেন্টের অবস্থান। গতকাল শনিবার (৩রা নভেম্বর) দুপুর ২টা ৩০ মিনিটের সময় আনুষ্ঠানিকভাবে ‘ভোজবাড়ি’র উদ্বোধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। উদ্বোধন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক দ্বারকেশ চন্দ্র নাথ, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আতাউর রহমান খান, পৌরসভার মেয়র মোঃ আব্দুস শুকুর, উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি আব্দুল হাছিব মনিয়া, কলেজের উপাধ্যক্ষ তারিকুল ইসলাম, বিয়ানীবাজার শিক্ষক সমিতির সাবেক সভাপতি মজির উদ্দিন আনসার, সুশাসনের জন্য নাগরিক (সুজন)’র বিয়ানীবাজার উপজেলা সভাপতি এডভোকেট আমান উদ্দিন, ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ শিহাব উদ্দিন, আব্দুল মান্নান, পৌর বিএনপির সভাপতি আবু নাছের পিন্টু, আওয়ামীলীগ নেতা আলমগীর হোসেন রুনুসহ প্রমুখ। এছাড়াও এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন সামাজিক, সাংস্কৃতিক, রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দসহ বিভিন্ন গণমাধ্যমের সাংবাদিকবৃন্দ। এসময় আগত অতিথিরা ফিতা কেটে রেস্টুরেন্টের উদ্বোধন করেন। পরে উদ্বোধন উপলক্ষে এক দোয়া মাহফিলের আয়োজন করে ‘ভোজবাড়ি’ কর্তৃপক্ষ। ‘ভোজবাড়ি’র খাবারের মধ্যে সবচেয়ে স্পেশাল হচ্ছে গ্রীল, চিকেন তান্দুরী, চিকেন পাকুড়া, চিকেন চাউমিন, কন ও থাই স্যুপ, স্পেশাল হালিম, চটপটি ও ফুচকা ; যা সবাইকে আকৃষ্ট করবে। ভোজবাড়ি’র ম্যানেজার জাহিদুল ইসলাম মুন্না জানান, একসঙ্গে ২০০ জন খেতে পারবে এ রেস্টুরেন্টে। কাটারিভোগ, চিনিগুঁড়া চালের সাদা ভাত, খান্দানি খিচুড়ি, চিকেন পাক্কি ও মাটন দম বিরিয়ানি, টাকি মাছ, লইট্টা শুঁটকিসহ ১০ পদের ভর্তা এবং বিভিন্ন ধরনের শাক-সবজি, মাছ, দেশি মুরগি, মাটন, ডাল, নান, কাবাব, চা-কফি ও বিভিন্ন ধরনের ফালুদা, জুস ইত্যাদি পাওয়া যাবে। ‘ভোজবাড়ি’ রেস্টুরেন্টে বাংলা খাবারের পাশাপাশি ইন্ডিয়ান, থাই ও চাইনিজ খাবার দিয়ে মেনু সাজানো হয়েছে। সর্বমোট ৫০ ধরনের খাবারের মেনু রয়েছে। এছাড়াও আইসক্রীম, জুস ও পানীয়’র সু-ব্যবস্থাও আছে এ ছাদ রেস্টুরেন্টে। রেস্টুরেন্টের নাম ‘ভোজবাড়ি’ দেয়ার কারন সম্পর্কে এর অন্যতম পরিচালক সুয়াইবুর রহমান স্বপন জানান, আমরা চেষ্টা করেছি খুব সাধারনভাবে রেস্টুরেন্ট ও খাবারের মেনুগুলো সাজাতে। উদ্দেশ্য হচ্ছে- রেস্টুরেন্টে আগত অতিথিরা খাবারের দাম ও পরিবেশের সাথে যেন সহজেই নিজেদের মানিয়ে নিতে পারেন, যা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। সুন্দর পরিবেশ, কিচেন ও খাবারের মান ভালো হলে অবশ্যই অতিথিরা বারবার যে কোনো রেস্টুরেন্টে যেতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করবেন। রেস্টুরেন্টের আরেক পরিচালক আহমেদ ফয়সাল জানান, গ্রাহকের আস্থা, নিজেদের অভিজ্ঞতা আর সেরা খাবারটি পরিবেশনের দৃঢ় মনোবল থেকেই ছাদ রেস্টুরেন্ট বিয়ানীবাজারে ঠিকানা গড়েছে। এবার আসল স্বাদের দেশি খাবার পরিবেশনের লক্ষ্যে আমরা ‘ভোজবাড়ি’ রেস্টুরেন্ট চালু করেছি। আশা করছি, বিয়ানীবাজারারের ভোজনরসিকদের ব্যাপক সাড়া পাবো। রেস্টুরেন্টের চেয়ারম্যান প্রবাসী মারুফ আহমদ জানান, খাওয়ার পরিবেশটা যাতে রুচিশীল হয় সে জন্যে রং, উপকরণ ব্যবহারে আমরা সবসময়ই সচেষ্ট ছিলাম।

ছাদের মধ্যে অবস্থিত এ রেস্টুরেন্টের মেঝেতে ব্যবহার করা হয়েছে সাধারণ ডিজাইনের টাইলস আর দেয়াল-ছাদের সিলিংয়ে দেয়া হয়েছে ব্যাম্বু কম্বিনেশন। সাথে রয়েছে এর অসাধারণ কালার কম্বিনেশন। এছাড়াও পুরো রেস্টুরেন্টের ভেতরে ও বাইরে রয়েছে টবে সাজানো দৃষ্টিনন্দন বিভিন্ন জাতের ফুলের গাছ। পরিবার-পরিজন, বন্ধু-বান্ধব নিয়ে নিয়মিত যারা বাইরে খান তারা এখানে কিছুটা ব্যতিক্রমী পরিবেশ পাবেন। সব বয়সী মানুষের কথা ভেবেই রেস্টুরেন্টটির ডিজাইন করা হয়েছে। মোট ১০০টি আসন সম্বলিত ছাদ রেস্টুরেন্ট ‘ভোজবাড়ি’তে আপনি চাইলেই যে কোনো ছোটখাটো ঘরোয়া পার্টির আয়োজন করতে পারবেন। তবে পার্টির সুবিধার্থে এ রেস্টুরেন্টে সর্বোচ্চ ২০০টি আসনের সুব্যবস্থা করে দিতে পারবে। প্রতিদিন সকাল ৮টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত খোলা থাকবে ‘ভোজবাড়ি’।

 

রিপ্লাই করুন

অনুগ্রহ করে আপনার মন্তব্য লিখুন
অনুগ্রহ করে আপনার নাম লিখুন